চট্টগ্রাম চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রিজ ও সোসাইটি অব চিটাগং আইটি প্রফেশনালসের উদ্যোগে চট্টগ্রামে তিন দিনব্যাপী আইটি মেলা শুরু হয়েছে। আজ শনিবার সকালে বন্দর নগরীর আগ্রাবাদস্থ ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টারের বঙ্গবন্ধু সম্মেলন কক্ষে আইটি মেলার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।
অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন চট্টগ্রামের বিভাগীয় কমিশনার মো. আবদুল মান্নান। তিনি বলেন, ‘দেশের রাজস্ব আয়ের বড় একটা অংশ চট্টগ্রাম থেকে আসে। তাই সরকার চট্টগ্রামকে অধিক গুরুত্ব দিচ্ছে। তারই প্রমাণ দেশের একমাত্র ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টারের অবস্থান চট্টগ্রামে।’

তিনি বলেন ‘বাংলাদেশ তথ্যপ্রযুক্তিতে অনেক এগিয়েছে। এখন ঘরে বসে ই-কমার্সের মাধ্যমে সারাবিশ্বের সঙ্গে ব্যবসা করা সম্ভব।’ বাংলাদেশ অনেকদূর এগিয়েছে উল্লেখ করে বিভাগীয় কমিশনার বলেন, ‘এখন পেছনে যাবার কোনো পথ নেই। হাতে হাত রেখে সকলে মিলে সরকারের অগ্রযাত্রাকে এগিয়ে নিতে হবে।

চট্টগ্রাম চেম্বারের সভাপতি মাহবুবুল আলমের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন সোসাইটি অব চিটাগং আইটি প্রফেশনালসের সভাপতি আবদুল্লাহ ফরিদ। অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে দক্ষিণ আফ্রিকার অনারারি কনসাল সোলায়মান আলম শেঠ, জাপানের অনারারি কনসাল নুরুল ইসলাম, চট্টগাম চেম্বার অব কমার্সের পরিচালক এমএ মোতালেব প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

সভাপতির বক্তব্যে চট্টগ্রাম চেম্বার সভাপতি মাহবুবুল আলম বলেন, ‘তথ্যপ্রযুক্তি এখন মানুষের নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যে পরিণত হয়ে গেছে। এটি মানুষের মৌলিক প্রয়োজনীয় জিনিসও বটে। চট্টগ্রামে আইটি হাব হবে। এর অংশ হিসেবে এই আইটি মেলার আয়োজন।’

মেলা চলবে ১৩ নভেম্বর সোমবার পর্যন্ত। প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত মেলা সবার জন্য উন্মুক্ত থাকবে। দেশের স্বনামধন্য ২৬ প্রতিষ্ঠানের ৫১টি স্টল রয়েছে। এছাড়া ভারতের একটি প্রতিষ্ঠান মেলায় অংশ নিয়েছে।

মেলার গোল্ড স্পন্সর নকিয়া ও স্মার্ট টেকনোলজি (বিডি)। টেকনোলজি পার্টনার লিংক থ্রি, সাইবার পার্টনার সফোজ এবং ফুড পার্টনার বনফুল। প্রণোদনামূলক কর্মকর্তাদের জন্য চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (চুয়েট) ও বাংলাদেশ কম্পিউটার সোসাইটিসহ (বিসিএস) তিনটি প্রতিষ্ঠানকে বিশেষভাবে স্টল বরাদ্দ দেয়া হয়েছে। মেলায় রয়েছে ছোট-বড় সবার জন্য সাইবার জোন।

Comments

comments

একটি উত্তর লিখুন

Please enter your comment!
Please enter your name here

thirteen − 4 =