মিয়ানমারের রাখাইন থেকে বাংলাদেশে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গা শরণার্থীদের অবস্থা দেখতে বাংলাদেশ সফররত সুইজারল্যান্ডের প্রেসিডেন্ট অ্যালেইন বারসেট কক্সবাজারে এসেছেন।

তিনি বেসরকারি একটি বিমানে করে সফরসঙ্গীসহ আজ মঙ্গলবার বেলা ১১টা ১৫ মিনিটে কক্সবাজার বিমানবন্দরে পৌঁছেন। এসময় তার সাথে সংস্কৃতি মন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর, জেনেভায় বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত এম শামিম আহসান, চীফ অফ প্রটোকল একেএম শহিদুল করিম সফরসঙ্গী হিসেবে আসেন।

বিমানবন্দরে তাদেরকে স্বাগত জানান, রোহিঙ্গা শরণার্থী কমিশনার (অতিরিক্ত সচিব) মুহাম্মদ আবুল কালাম, জেলা প্রসাশক মোহাম্মদ আলী হোসেনসহ আইওএম, ইউএনএইচসিআরসহ বিভিন্ন আন্তজার্তিক দাতা সংস্থার প্রতিনিধিরা।

বিমানবন্দর থেকে সুইজারল্যান্ডের প্রেসিডেন্ট ও তার সফরসঙ্গীরা কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতাল পরিদর্শন করেন। হাসপাতালে তিনি সুইজারল্যান্ড সরকারের পক্ষ থেকে একশ’টি উন্নতমানের বেডসহ বিভিন্ন চিকিৎসার সরঞ্জাম হস্তান্তর করেন। পরে তিনি হাসপাতালে চিকিৎসার সম্পর্কে কর্তব্যরত ডাক্তারদের কথা শুনেন এবং রোগীদের বিভিন্ন ওয়ার্ড ঘুরে দেখেন।

হাসপাতাল পরিদর্শন শেষে দুপুর ১২টার দিকে কক্সবাজার শহর থেকে রোহিঙ্গা শরণার্থী ক্যাম্পের উদ্দেশে রওয়ানা হন। দুপুর ২টায় সুইজারল্যান্ডের প্রেসিডেন্ট অ্যালেইন বারসেট ও তার সফরসঙ্গীরা উখিয়া কুতুপালং পৌঁছার কথা।

তার সফরসূচির মধ্যে রয়েছে, সেখানে প্রথমে কুতুপালং ডিপোর আইওএম হাসপাতাল পরিদর্শন করবেন এবং ইউনিসেফ স্থাপিত শিশুবান্ধব সেন্টার পরিদর্শন করবেন। এ সময় তিনি রোহিঙ্গা শিশুদের সাথে কথা বলবেন। এরপর তিনি কুতুপালং ডি-৫ এরিয়ায় অবস্থিত রোহিঙ্গাদের ত্রাণ বিতরণ কার্যক্রম প্রত্যক্ষ করবেন। পরে তিনি মিয়ানমার থেকে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গা নারী ও পুরুষেরদের সাথে কথা বলবেন এবং প্রেসে ব্রিফিংয়ে অংশ নিবেন।

Comments

comments

আরও পড়ুনঃ   সরকার কোনভাবেই কর্মবিমুখ জাতি গড়ে তুলতে চায় না

একটি উত্তর লিখুন

Please enter your comment!
Please enter your name here

two × 4 =