কক্সবাজারের উদ্দেশ্যে চার দিনের সফরে চট্টগ্রাম পৌঁছেছেন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। শনিবার রাত ১০টা ৫০ মিনিটে চট্টগ্রাম সার্কিট হাউসে পৌঁছান তিনি।

এ সময় খালেদা জিয়াকে স্বাগত জানান বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরী, ভাইস চেয়ারম্যান আবদুল্লাহ আল নোমান, বিএনপি নেতা মীর মো. নাসিরসহ স্থানীয় বিএনপি ও অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীরা।

এর আগে শনিবার বিকালে চট্টগ্রাম যাওয়ার পথে হামলার মুখে পড়েন বিএনপি চেয়ারপারসন। এ সময় প্রায় ৪০ থেকে ৫০ জন দুর্বৃত্ত লাঠিসোঁটা নিয়ে গাড়িবহরে হামলা চালায়। কমপক্ষে ১৫ থেকে ২০টি গাড়ি ভাঙচুর করা হয়েছে। এর মধ্যে সাংবাদিকদের গাড়িও ছিল।

বিএনপি চেয়ারপারসনের গাড়িবহর ফেনীর ফতেপুর রেলক্রসিং অতিক্রম করার পরপরই অতর্কিত হামলা চালানো হয়।

খালেদা জিয়ার সঙ্গে থাকা বিশেষ সহকারী শামসুর রহমান শিমুল বিশ্বাস বলেন, সাংবাদিক ও বিএনপি নেতাকর্মীদের ওপর যে হামলা হয়েছে সেটি নিন্দনীয়- যা ভাষায় প্রকাশ করার মতো নয়। এর সঙ্গে জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করেছেন খালেদা জিয়া।

শিমুল বিশ্বাস আরও জানান, খালেদা জিয়ার নির্দেশে তিনি হামলার শিকার সাংবাদিকদের খোঁজখবর নিয়েছেন।

এই হামলার প্রতিক্রিয়ায় বিএনপির জ্যেষ্ঠ যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী অভিযোগ করে বলেন, আওয়ামী লীগ ‘ডাকাতের’ মতো গণমাধ্যমকর্মীসহ বিএনপি নেতা-কর্মীদের ওপর অতর্কিত হামলা চালিয়েছে।

তিনি বলেন, আওয়ামী লীগের মহৎ কীর্তি হলো গণতন্ত্রকে বধ করতে বিরোধী দলকে নিষ্ঠুর-নির্দয় নির্যাতন করা।

Comments

comments

একটি উত্তর লিখুন

Please enter your comment!
Please enter your name here

12 − five =