চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জে পূর্বশত্রুতার জেরে প্রতিপক্ষের ছোড়া এসিডে ঝলসে গেছে মেরাজুল ইসলাম (৩০) নামে এক যুবকের মুখ, বুক, বাম হাতসহ দেহের অর্ধাংশ। এসিড সন্ত্রাসের শিকার মেরাজুল উপজেলার ধাইনগর ইউনিয়নের রাণীনগর গ্রামের মৃত আবদুস সোবহানের ছেলে।

গত রোববার দিবাগত গভীর রাতে নিজ বাড়িতে স্ত্রী-সন্তান নিয়ে ঘুমিয়ে থাকার সময় এসিড হামলার শিকার হন মেরাজ। সোমবার সকালে গুরুতর দগ্ধ অবস্থায় তাকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

মেরাজের পরিবার সুত্রে জানা গেছে, প্রাচীর টপকিয়ে বাড়ীতে প্রবেশ করে ঘরে ঢুকে এসিড ছুড়ে মারা হয় মেরাজুলের শরীরে। এলাকারই কিছু চিহ্নিত ব্যক্তি ও কয়েকজন অজ্ঞাত পরিচয় সন্ত্রাসী এ ঘটনা ঘটায়। এসময় তারা ঘরের মূল্যবান জিনিসপত্র নিয়ে পালোনোরও চেষ্টা করে। তবে মেরাজুল এবং তার স্ত্রী ও পাঁচ বছরের ছেলের চিৎকারে আশেপাশের লোকজন বেরিয়ে আসলে পালিয়ে যায় সন্ত্রাসীরা। এ ঘটনায় মেরাজুলের ভাই আলমাস শিবগঞ্জ থানায় কয়েকজনের নাম উল্লেখ করে একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে।

শিবগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হাবিবুল ইসলাম সোমবার রাতে জানান, পূর্ব শত্রুতার জেরে এ ঘটনা ঘটেছে বলে প্রাথমিকভাবে নিশ্চিত হওয়া গেছে। এ ব্যাপারে তদন্ত সাপেক্ষে পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Comments

comments

একটি উত্তর লিখুন

Please enter your comment!
Please enter your name here

one + 18 =