টেস্টের মতো ওয়ানেডেতেও টানা দুই ম্যাচ হেরে সিরিজ হারল বাংলাদেশ। এক ম্যাচ বাকি থাকতেই ওয়ানডে সিরিজ জিতে নিল দক্ষিণ আফ্রিকা।

ঘরের মাঠে পরাশক্তি বাংলাদেশ জয় তো দূরের কথা, দক্ষিণ আফ্রিকায় লড়াইটাই জমিয়ে তুলতে পারছে না।

সিরিজের প্রথম ওয়ানডেতে বড় ব্যবধানে হারলেও বাংলাদেশের প্রাপ্তি ছিল মুশফিকের সেঞ্চুরি। দ্বিতীয় ওয়ানডেতে প্রাপ্তি বলতে মুশফিক-ইমরুলের ফিফটি আর রুবেল-সাকিবের বোলিং।

ম্যাচ শেষে ওয়ানডে অধিনায়ক মাশরাফি বলেন, ‘আমাদের মূল সমস্যা হচ্ছে ব্যক্তিগত নৈপুণ্য দেখা যাচ্ছে কিন্তু দল হিসেবে ভালো খেলতে পারছি না।’

পার্লে দ্বিতীয় ওয়ানডে প্রথম ২০ ওভারে দক্ষিণ আফ্রিকা যেখানে ওভারপ্রতি ৬-এর নিচে রান তুলেছে, তারাই শেষ পর্যন্ত গড়েছে ৩৫৩ রানের পাহাড়। আর সেটি সম্ভব হয়েছে এবি ডি ভিলিয়ার্সের বিস্ফোরক ব্যাটিংয়ের সৌজন্যে।

মাশরাফি হাসিমুখেই স্বীকার করলেন, ডি ভিলিয়ার্সের কাছে হেরেছে বাংলাদেশ, ‘এবি এসেছে আর আমাদের কাছ থেকে ম্যাচের নিয়ন্ত্রণ নিয়ে নিয়েছে। সবাই জানি, এবি একজন বিস্ফোরক ব্যাটসম্যান। আজ সে তার অন্যতম সেরা ইনিংস খেলেছে। সে যখন এমন ছন্দে থাকে, আপনাকে তখন শতভাগ সেরাটা দিতে হবে। না হলে সে আপনাকে ভোগাবে। সেটাই আজ হয়েছে। তবে আমাদের স্কোরটা ৩১০-৩২০ হতে পারত। ভালো শুরু করেছিলাম। তাহিরের উইকেটগুলো আমাদের অনেক চাপে ফেলেছে।’

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

সাউথ আফ্রিকা: ৫০ ওভারে ৩৫৩/৬ (আমলা ৮৫, ডি কক ৪৬, ডু প্লেসিস ০, ডি ভিলিয়ার্স ১৭৬, ডুমিনি ৩০, বেহারদিয়েন ৭*, প্রিটোরিয়াস ০, ফেলুকোও ০*; মাশরাফি ০/৮২, তাসকিন ০/৭১, সাকিব ২/৬০, নাসির ০/৪৯, রুবেল ৪/৬২, সাব্বির ০/১১, মাহমুদউল্লাহ ০/১৬)।

বাংলাদেশ: ৪৭.৫ ওভারে ২৪৯ (তামিম ২৩, ইমরুল ৬৮, লিটন ১৪, মুশফিক ৬০, রিয়াদ ৩৫, সাকিব ৫, সাব্বির ১৭, নাসির ৩, মাশরাফি ০; ফেলুকোও ৪/৪০, প্রিটোরিয়াস ২/৪৮, তাহির ৩/৫০, প্যাটারসন ১/৬৭। )

Comments

comments

একটি উত্তর লিখুন

Please enter your comment!
Please enter your name here

2 × three =