প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা চার দিনের সরকারি সফরে আজ রোববার ইতালি যাচ্ছেন। সেখানে তিনি ইন্টারন্যাশনাল ফান্ড ফর এগ্রিকালচারাল ডেভেলপমেন্টের (ইফাদ) পরিচালনা পর্ষদের বার্ষিক অধিবেশনে যোগ দেবেন।প্রধানমন্ত্রী আজ সকালে রোমের উদ্দেশে ঢাকা ত্যাগ করবেন। তিনি ইফাদের প্রেসিডেন্ট গিলবার্ট এফ হুনগবোর আমন্ত্রণে পরিচালনা পর্ষদের ৪১তম বার্ষিক অধিবেশনে যোগ দেবেন। বিশ্বের ক্যাথলিক খ্রিষ্টান সম্প্রদায়ের প্রধান গুরু পোপ ফ্রান্সিসের আমন্ত্রণে শেখ হাসিনা ভ্যাটিকান সিটি সফর করবেন। সেখানে তিনি পোপ ফ্রান্সিসের সঙ্গে বৈঠক করবেন।
প্রধানমন্ত্রী ও সফরসঙ্গীদের নিয়ে এমিরেটস এয়ারলাইনসের একটি ফ্লাইট সকালে রোমের উদ্দেশে হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর ত্যাগ করবে। ফ্লাইটটি স্থানীয় সময় সন্ধ্যা পৌনে ৭টায় রোমের ফিউমিসিনো বিমানবন্দরে পৌঁছানোর কথা রয়েছে। ইতালিতে বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত আবদুস সোবহান সিকদার বিমানবন্দরে প্রধানমন্ত্রীকে অভ্যর্থনা জানাবেন। পথে প্রধানমন্ত্রী প্রায় দুই ঘণ্টার জন্য দুবাইয়ে যাত্রাবিরতি করবেন।
পোপ ফ্রান্সিসের সঙ্গে বৈঠক করতে প্রধানমন্ত্রী ১২ ফেব্রুয়ারি ভ্যাটিকান সিটি সফর করবেন। তিনি সেখানে সেক্রেটারি স্টেট অব ভ্যাটিকান সিটি কার্ডিনাল পেইটরো পারোলাইনের সঙ্গে বৈঠক করবেন।
এর আগে পোপ ফ্রান্সিস শেখ হাসিনার আমন্ত্রণে গত ৩০ নভেম্বর থেকে ২ ডিসেম্বর পর্যন্ত বাংলাদেশ সফর করেন।
শেখ হাসিনা ১৩ ফেব্রুয়ারি সকালে রোমে ইফাদের সদর দপ্তরে গভর্নিং কাউন্সিলের ৪১তম বৈঠকের উদ্বোধনী অধিবেশনে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করবেন। তিনি মূল প্রবন্ধে তাঁর সরকারের অন্যান্য উন্নয়ন উদ্যোগ ছাড়াও দেশের সাফল্য এবং কৃষি খাতের অর্জন তুলে ধরবেন।
গত বৃহস্পতিবার সংবাদ ব্রিফিংয়ে পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ এইচ মাহমুদ আলী এ কথা বলেন।
প্রধানমন্ত্রী যুব উন্নয়ন, দরিদ্র ও প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর জীবনমানের উন্নয়ন এবং এ ক্ষেত্রে স্থানীয় সরকারের ভূমিকার জন্য তাঁর সরকারের নেওয়া বিভিন্ন পদক্ষেপ তুলে ধরবেন। তিনি সম্মেলনের কি-নোট স্পিকারদের সম্মানে ইফাদ প্রেসিডেন্টের দেওয়া মধ্যাহ্নভোজে যোগ দেবেন।
১৩ ফেব্রুয়ারি সন্ধ্যায় শেখ হাসিনা রোমের পারকো দেই প্রিনসিপি গ্র্যান্ড হোটেল অ্যান্ড এসপিএ প্রবাসী বাংলাদেশিদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে যোগ

আরও পড়ুনঃ   সমবায় সমিতি গঠনে সমবায়ীদের ভূমিকা রাখতে হবে: রাষ্ট্রপতি

দেবেন। তিনি আবুধাবি হয়ে ১৫ ফেব্রুয়ারি দেশে ফিরবেন।

অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত, কৃষিমন্ত্রী মতিয়া চৌধুরী এবং পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ এইচ মাহমুদ আলী প্রধানমন্ত্রীর সফরসঙ্গী হিসেবে থাকবেন।

Comments

comments

একটি উত্তর লিখুন

Please enter your comment!
Please enter your name here

16 − nine =