‘খালেদা জিয়াকে কারাগারে পাঠানো বর্তমানে আমাদের রাজনীতির টার্নিং পয়েন্ট’ বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মওদুদ আহমদ। আজ শনিবার জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন।

মওদুদ আহমদ বলেন, ‘খালেদা জিয়ার কারাবরণ মিথ্যা মামলার ওপর ভিত্তি করে এবং একটি ভুয়া বানোয়াট অভিযোগ এনে। এটি হবে বর্তমান আমাদের রাজনীতির টার্নিং পয়েন্ট। সরকার একটি “পলিটিক্যাল ব্লান্ডার” করেছে। পলিটিক্যাল ব্লান্ডার অব দ্য পার্ট অব দ্য গভর্নমেন্ট। এর প্রতিক্রিয়া যে ব্যাপক ও গভীর হবে, সেটি সরকার উপলব্ধি করতে পারেনি। এ জন্য খালেদা জিয়ার মুক্তির জন্য আমাদের সংগ্রাম অব্যাহত থাকবে। আগামী নির্বাচনে এই যে অপরাধ সরকার করেছে, তার উত্তর দেশের মানুষ ব্যালটের মাধ্যমে দেবে।’

প্রতিটি জেলায় আইনজীবী সমিতিতে খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে সব মামলা প্রত্যাহার এবং দেশের রাজনৈতিক নেতা–কর্মী ও সরকারের সমালোচকদের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দায়ের ও গণগ্রেপ্তারের প্রতিবাদে আগামীকাল রোববার থেকে ১৫ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত শান্তিপূর্ণ প্রতিবাদ কর্মসূচি পালনের আহ্বান জানিয়েছে জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরাম।

সংবাদ সম্মেলনে জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরামের সুপ্রিম কোর্ট শাখার সভাপতি জয়নাল আবেদিন বলেন, ‘খালেদা জিয়াকে অন্যায় ও বেআইনিভাবে সাজা প্রদান করায় ফোরাম এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছে। আমরা আশা করব, এর রায়কে কেন্দ্র করে বিএনপি যে দায়িত্বশীলতার পরিচয় দিয়েছে, সে রকম আচরণ ক্ষমতাসীনেরাও করবে। তাদের মধ্যে শুভবুদ্ধি ফিরে আসবে। অন্যথায়, দেশে যে ভয়াবহ সংকটজনক পরিস্থিতির জন্য উদ্ভব ঘটবে তার দায়দায়িত্ব বর্তমান ক্ষমতাসীনদের বহন করতে হবে।’

জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরামের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সানাউল্লাহ মিয়ার সঞ্চালনায় সংবাদ সম্মেলনে অন্যদের মধ্য বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান নিতাই রায় চৌধুরী, ফোরামের সুপ্রিম কোর্ট শাখার সম্পাদক এম বদরুদ্দোজা বাদল উপস্থিত ছিলেন।

Comments

comments

আরও পড়ুনঃ   প্রার্থীরা যে যেখানে ভোট দিলেন

একটি উত্তর লিখুন

Please enter your comment!
Please enter your name here

four + eight =