আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বিএনপি হচ্ছে আত্মস্বীকৃত দুর্নীতিবাজ দল। ৮ ফেব্রুয়ারি জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলার রায়ের ১০ দিন আগে বিএনপি কাউন্সিল বৈঠক না করে সংগঠনের ৭ ধারা বাতিল করে। সেই ৭ ধারা (ঘ)-তে বলা আছে, উন্মাদ, দুর্নীতিবাজ, এ রকম কেউ নেতা হতে পারবেন না। একজন তো (খালেদা জিয়া) দুর্নীতির দায়ে কারাগারে আছেন। অন্যজন (তারেক রহমান) দণ্ডপ্রাপ্ত দুর্নীতিবাজ এখন পলাতক। তাঁকে দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান করার জন্য এটি করা হয়েছে।

আজ রোববার রাজধানীর ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগের রাজনৈতিক কার্যালয়ে ঢাকার আশপাশের জেলার সাংসদ ও অঙ্গ-সহযোগী সংগঠনের নেতাদের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় ওবায়দুল কাদের এসব কথা বলেন।

আওয়ামী লীগের কোনো ধারা বাতিল করতে হলে কাউন্সিল ছাড়া এটা করা যায় না উল্লেখ করে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী বলেন, ‘বিএনপি এটি কেন করেছে, এর জবাব এখনো পাইনি।’

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, বর্তমানে বিএনপির কার্যক্রমে যে শান্তিপূর্ণ বলা হচ্ছে, এটা তাদের আসল ছবি না। তারা দূতাবাসে, জাতির পিতার ছবিতে হামলা চালিয়েছে। প্রিজন ভ্যান থেকে আসামিকে ছিনিয়ে নিচ্ছে, পুলিশের ওপর হামলা করছে—এটাই হচ্ছে বিএনপির চিত্র।

দলের নেতা–কর্মীদের উদ্দেশে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘আমাদের এখন নারী, তরুণ ও প্রথম ভোটারদের গুরুত্ব দিতে হবে। এখন থেকে নির্বাচনের জন্য কাজ করতে হবে, ক্যাম্পেইন করতে হবে।’

আগামী সাতই মার্চ উপলক্ষে করণীয় নিয়ে আলোচনা হয় সভায়। সেদিন বড় ধরনের কোনো সমাবেশ হতে পারে।

Comments

comments

আরও পড়ুনঃ   খালেদা জিয়ার মামলার রায় কি পূর্বেই নির্ধারিত, প্রশ্ন ফখরুলের

একটি উত্তর লিখুন

Please enter your comment!
Please enter your name here

two × two =