মো. জাফর আলম, কক্সবাজার প্রতিনিধি:কক্সবাজারের টেকনাফ উপজেলার বাহারছড়া ইউনিয়নের শাপলাপুর গ্রামে রোহিঙ্গাদের বাসা ভাড়া দেওয়ার অপরাধে তিন ব্যক্তিকে ৬ মাসের কারাদণ্ড দিয়েছে র‍্যাবের  ভ্রাম্যমাণ আদালত।

এসময় দুটি ভাড়া বাসা (কলোনী) থেকে ১৭১ জন রোহিঙ্গাকে উদ্ধার করে উখিয়ার রোহিঙ্গা শরণার্থী শিবিরে পাঠানো হয়। র‍্যাব -৭ কক্সবাজার ক্যাম্পের কোম্পানী কমান্ডার মেজর মো. রুহুল আমিন বলেন, রোহিঙ্গাদের বাসা ভাড়া দেওয়ার খবর পেয়ে আজ সোমবার শাপলাপুরে অভিযান চালায় র্যাব। এসময় দুই ব্যক্তির ভাড়া বাসা থেকে ১৭১ জন রোহিঙ্গা উদ্ধার করা হয়। পরে তাদেরকে উখিয়ার রোহিঙ্গা শিবিরে পাঠানো হয়।

তিনি আরও বলেন, রোহিঙ্গাদের বাসা ভাড়া দেওয়া গুরুতর অপরাধ। কিন্তু শাপলাপুর এলাকার আব্দুল মাবুদ ও জহুর আলম নামে দুই ব্যক্তি তাদের জমিতে টিনশেড কলোনী তৈরী করে রোহিঙ্গাদের বাসা ভাড়া দেয়। অভিযানের সময় ভ্রাম্যমাণ আদালতের কাছে নিজেদের অপরাধ স্বীকার করেন তারা। পরে ভাড়া বাসার মালিক আব্দুল মাবুদ, জহুর আলম ও তার কর্মচারি মো. সাকিবকে ভ্রাম্যমাণ আদালত ৬ মাসের কারাদণ্ড দেয়। ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন র্যাবের প্রধান কার্যালয়ের নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট সরওয়ার আলম।

Comments

comments

একটি উত্তর লিখুন

Please enter your comment!
Please enter your name here

five − two =