বাচ্চাদের সামলাতে হিমশিম খাচ্ছেন মা। তাদের বেবিসিটারে রাখবেন সে রকম আর্থিক সঙ্গতিও নেই। উপায়ন্তর না দেখে চাকরি ছাড়েন। গত শুক্রবার সেই বাচ্চাদেরই মাইক্রোওয়েভ ওভেনে ঢুকিয়ে জীবন্ত দগ্ধ করে খুনের অভিযোগ উঠলো তাদের মা লেমোরা উইলিয়ামসের বিরুদ্ধে।

এমন মর্মস্পর্শী ঘটনা ঘটেছে যুক্তরাষ্ট্রের জর্জিয়া অঙ্গরাজ্যের আটলান্টা শহরে।

পুলিশ জানিয়েছে, ফুলটন কাউন্টির বাসিন্দা লেমোরা তার স্বামী জামিল পেনের থেকে আলাদা থাকতেন। চার সন্তানের মধ্যে লেমোরার সঙ্গে তার ফ্ল্যাটে ছিল তার তিন ছেলে- তিন বছরের জামিল, বছর দুয়েকের কেয়ান্টে এবং এক বছরের জাকার্টার। পাশের বাড়িতে খেলা করছিল ছয় বছরের মেয়ে।

ফুলটন কাউন্টির পুলিশের বরাত দিয়ে আনন্দবাজার জানায়, গত শুক্রবার কেয়ান্টে এবং জা’কার্টারকে ওভেনে ঢুকিয়ে তা অন করে দেন লেমোরা। ওভেনেই দগ্ধ হয়ে মারা যায় লেমোরার দুই শিশু। এরপর ওভেন থেকে তাদের মৃতদেহ বের করে মেঝেতে রেখে দেন। সে অবস্থাতেই স্বামী জামিলের সঙ্গে ‘ভিডিও চ্যাট’ শুরু করেন তিনি। ভিডিও চ্যাটের সময় মেঝেতে কেয়ান্টে এবং জাকার্টারের নিথর দেহ দেখে প্রথমে সন্দেহ হয় জামিলের। সঙ্গে সঙ্গে পুলিশে খবর দেন তিনি। পুলিশ এসে ওই দুই শিশুর মৃতদেহ উদ্ধার করে।

পুলিশের কাছে লেমোরা দাবি করেছেন, এক জন আত্মীয়ের কাছে ওই দুই শিশুকে দেখাশোনার জন্য ছেড়ে গিয়েছিলেন তিনি। তখনই ওই শিশুরা মারা গিয়েছে। তবে লেমোরার বক্তব্যে অসঙ্গতি দেখা দেওয়ায় পুলিশের সন্দেহ হয়। তাকে সন্তানদের খুনের অভিযোগে গ্রেপ্তার করা হয়।

তদন্তে নেমে পুলিশ জানতে পেরেছে, লেমোরার মানসিক অবস্থা ভালো ছিল না। ১৯ বছর বয়সে বাবার মৃত্যুর পর থেকেই তার মানসিক সমস্যা দেখা দেয়।

Comments

comments

একটি উত্তর লিখুন

Please enter your comment!
Please enter your name here

5 + 11 =