সিঙ্গাপুরে যুবক-যুবতীর বিয়ের আসরে পৌঁছে ছিলেন আত্মীয়-পরিজন, বন্ধু-বান্ধবরা। কনের সাজে বিয়ের পিঁড়িতে বসতে প্রস্তুত ছিলেন যুবতী। এতদূর পর্যন্ত আর পাঁচটা বিবাহ আসরের মতোই জমে উঠেছিল অনুষ্ঠান। কিন্তু বিপত্তি ঘটল তারপর। আসর ভর্তি আমন্ত্রিত অতিথিদের সামনে হবু স্বামী যে এমন কাণ্ড ঘটাবেন তা স্বপ্নেও ভাবতে পারেননি কনে।

শুধু কনে কেন, হবু বর এমন ঘটনা ঘটাবেন, তা আন্দাজ করতে পারেননি আমন্ত্রিত অতিথিরাও। কী করলেন যুবক? আসর ভরতি লোকের সামনে চালিয়ে দিলেন একটি ভিডিও। শুরুতে তাতে দেখা যায় কনে-বরের ভালবাসার কেমিস্ট্রি। কিন্তু পরক্ষণে পালটে যায় ছবি। ভেসে ওঠে অন্য এক পুরুষের মুখ। যার সঙ্গে ঘনিষ্ঠ অবস্থায় দেখা যায় কনেকে। অন্য এক পুরুষের হাত ধরে একটি হোটেলের ঘরে ঢুকে গেলেন ওই যুবতী। তারপর সেখানে যৌনমিলনে লিপ্ত হন তারা।

পাত্রের দাবি, তাঁর সঙ্গে সম্পর্কে থাকাকালীনই এই কাণ্ড ঘটিয়েছেন যুবতী। বিয়ে ঠিক হয়ে যাওয়ার পরও নিজের যৌন চাহিদা চেপে রাখতে পারেননি তিনি। আর তাই হবু স্ত্রীকে উচিত শিক্ষা দিতেই ভিডিওটি চালান তিনি।

কিন্তু এত লোকের সামনে আচমকা এমনভাবে তাঁর অন্তরঙ্গ মুহূর্ত তুলে ধরা হবে, তা প্রত্যাশা করেননি যুবতী। জানা গিয়েছে, এই ঘটনার পরই নাকি আসর থেকে পালিয়ে যান তিনি। যদিও পরে তাঁদের বিয়ে হয়েছে কিনা সে খবর পাওয়া যায়নি।

 

Comments

comments

আরও পড়ুনঃ   পেটে মরা সন্তান নিয়েই বেঁচে ছিলেন ৪৬ বছর!

একটি উত্তর লিখুন

Please enter your comment!
Please enter your name here

one × 4 =